Connect with us

বাংলাদেশ ক্রিকেট

শান্ত-হৃদয়দের নিয়মিত বোলিংয়ে দেখতে চান হেরাথ


প্রকাশ

:

ছবি : সংগৃহীত

|| ডেস্ক রিপোর্ট ||

ভারতের মাটিতে ওয়ানডে বিশ্বকাপ শুরু হতে দেরি নেই। ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) মেগা ইভেন্ট হওয়ায় এই আসরে বেশীরভাগ ম্যাচেই স্পোর্টিং উইকেট পাবে বাংলাদেশ এবং অন্যান্য দলগুলো। এসব উইকেটে ব্যাটার, পেস বোলারদের পাশাপাশি বাড়তি সুবিধা পাবেন স্পিনাররাও। আর মূল স্পিনাররা সফল না হলে গুরুত্বপূর্ণ সময়ে উইকেট এনে দিতে পারবেন পার্টটাইম স্পিনাররাও। এ কারণে বিশ্বকাপের আসরে নাজমুল হোসেন শান্ত এবং তৌহিদ হৃদয়দের মতো পার্টটাইম স্পিনারদের নিয়মিত বোলিংয়ে দেখতে চান বাংলাদেশের স্পিন বোলিং কোচ রঙ্গনা হেরাথ।

সাম্প্রতিক সময়ে শান্তর পার্ট-টাইম স্পিনে সফলতা পেয়েছে বাংলাদেশ। আয়ারল্যান্ড সিরিজের তৃতীয় এবং শেষ ওয়ানডেতে বাংলাদেশের জয়ে বড় অবদান রাখে শান্তর বোলিং। সেই ম্যাচের এক পর্যায়ে ৯ ওভারে মাত্র ৫২ রান দরকার ছিল আইরিশদের। হাতে ছিল সাত উইকেট।


উইকেটে হ্যারি টেক্টর এবং লরকান টাকাররা ততক্ষণে থিতু হয়ে গেছেন। এমন পরিস্থিতিতে ম্যাচ জয় অনেকটা অসম্ভবই ছিল বাংলাদেশের জন্য। ঠিক তখনই টেক্টরকে ফিরিয়ে ম্যাচের মোড় বদলে দেন শান্ত।


৪২ তম ওভারে শান্তর করা নিরীহ এক লেংথ বল উড়িয়ে মেরে ক্যাচ তুলে দেন ৪৫ রান করা টেক্টর। মিড উইকেটে অসাধারণ সেই ক্যাচটি নেন লিটন কুমার দাস। এরপর মুস্তাফিজুর রহমান এবং হাসান মাহমুদের দাপটে রান তাড়ার পরিকল্পনাই ঠিকমতো গোছাতে পারেনি আইরিশরা। ম্যাচ হেরে যায় তারা।

মিরপুর শের-ই বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে পার্টটাইম স্পিনারদের নিয়ে করা এক প্রশ্নের জবাবে শান্ত বলেন, 'এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। যদি ব্যাটাররা কয়েক ওভার বল করে দেয়। যেমন শান্ত, এটা বোলিংয়ে অনেক বিকল্প তৈরি করবে। যখন অনেক বিকল্প থাকবে তখন ঠিক সমন্বয় মিলবে। আমি সব সময় হৃদয়, শান্তদের বোলিংয়ে দেখতে পছন্দ করব।'

'এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। যদি ব্যাটাররা কয়েক ওভার বল করে দেয়। যেমন শান্ত, এটা বোলিংয়ে অনেক বিকল্প তৈরি করবে। যখন অনেক বিকল্প থাকবে তখন ঠিক সমন্বয় মিলবে। আমি সব সময় হৃদয়, শান্তদের বোলিংয়ে দেখতে পছন্দ করব।'

লঙ্কান এই স্পিন কিংবদন্তির মতে, পার্টটাইম স্পিনাররা নিয়মিত বোলিং করলে অধিনায়কের জন্যেও কাজটা সহজ হবে। কেননা বোলিং আক্রমণে বৈচিত্র্যও আসবে তখন।

হেরাথ আরও বলেন, 'আমি সব সময়ই ভাবি কন্ডিশন যখনই স্পিনারদের জন্য কঠিন হবে, তখন চ্যালেঞ্জ হবে। এজন্যই বিশ্বকাপের আগে আমরা প্রস্তুত হচ্ছি। আপনি যদি উইকেট থেকে সহায়তা না পান, বৈচিত্র্যের দিকে চেষ্টা করতে হবে, যেটা আমাদের প্রয়োগ করতে হবে।'

সর্বশেষ

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

ভারতকে পাকিস্তান মনে হচ্ছে শাদাবের

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

আহমেদাবাদ থেকে ইডেন গার্ডেন্স, যে ১০ মাঠে হবে বিশ্বকাপ

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

বিশ্বকাপে নতুন চ্যালেঞ্জের অপেক্ষায় আছেন সৈকত

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

গড় আড়াই বছরে বদলে গেছেন কোহলি

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

৫০-৬০-৭০ রানকে মানসম্পন্ন মনে করেন না শান্ত

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

উইলিয়ামসনের পর প্রথম ম্যাচে খেলা হচ্ছে না সাউদির

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

‘তোমার কাছ থেকে শিখতে চাই’, রোহিতকে বলেছিলেন ল্যাবুশেন

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

বিশ্বকাপ চলাকালে অবসর নিয়ে ভাবতে নারাজ বাটলার

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

এভাবে বোলিং করলে পাকিস্তানকে ৪০০ করতে বলছেন রমিজ

১ অক্টোবর, রবিবার, ২০২৩

গা গরমের ম্যাচে স্টার্কের হ্যাটট্রিক

আর্কাইভ

বিজ্ঞাপন