Connect with us

যৌন হেনস্তার দায়ে অস্ট্রেলিয়ার নেতৃত্ব ছাড়লেন পেইন


প্রকাশ

:


আপডেট

:

ছবি :

|| ডেস্ক রিপোর্ট ||

অ্যাশেজ শুরুর আগে অস্ট্রেলিয়া দলে বড় ধাক্কা। টেস্ট দলের অধিনায়কত্ব ছাড়লেন টিম পেইন। ক্রিকেট তাসমানিয়ার নারী সহকর্মীকে কুরুচিপূর্ণ ইঙ্গিত দিয়ে বার্তা পাঠানোই কাল হয়েছে পেইনের। ক্রিকেট তাসমানিয়া ও ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার (সিএ) তদন্তে আগে ধরা পড়লেও সম্প্রতি এসব বার্তা গণমাধ্যমে চলে আসায় টেস্ট দলের নেতৃত্ব ছাড়লেন পেইন। যদিও অস্ট্রেলিয়ার হয়ে খেলা চালিয়ে যেতে চান তিনি।

২০১৭ সালের অ্যাশেজের সময় গ্যাবা টেস্টের আগে পরিচিত নারী সহকর্মীকে কুরুচিপূর্ণ ছবিসহকারে বার্তা পাঠান পেইন। অনৈতিক প্রস্তাবও দেন সেই নারীকে। সেই নারী তাতে সায় দেননি। সেই বছরই কর্মক্ষেত্রে ইস্তফা দেন নাম প্রকাশ না হওয়া সেই নারী।

এরপর ২০১৮ সালের জুনে সেই নারী ক্রিকেট তাসমানিয়ার এক কর্মকর্তার কাছে পেইনের নামে অভিযোগ করেন। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া পুরো বিষয়টি ২০১৮ সালের মার্চ থেকেই জানত।

কেননা ক্রিকেট তাসমিনিয়া বিষয়টি গুরুত্ব দিয়েই তদন্ত শুরু করে। তদন্তে সহায়তা করায় সেসময় অবশ্য পেইনকে কোনও শাস্তি দেয়নি সিএ। এতদিন পর এই ঘটনা প্রকাশ হয় অস্ট্রেলিয়ার সংবাদমাধ্যমে। বিতর্কটি নাম পেয়ে গেছে 'সেক্সটিং স্ক্যান্ডাল'।

নিজের ভুল বুঝতে পেরেছেন অস্ট্রেলিয়ার ৩৬ বছর বয়সী এই উইকেটরক্ষক ব্যাটার। নিজের ভুলে অশ্রুসিক্ত হয়ে ক্ষমা প্রার্থনা করেন তিনি।

গণমাধ্যমের সামনে বিবৃতিতে বলেন, 'আজ আমি অস্ট্রেলিয়ার টেস্ট দলের নেতৃত্ব থেকে পদত্যাগের ঘোষণা করছি। অবিশ্বাস্যরকমের কঠিন সিদ্ধান্ত এটি। তবে সঠিক সিদ্ধান্ত আমার জন্য, আমার পরিবারের জন্য ও ক্রিকেটের জন্য। আমার সিদ্ধান্তের প্রেক্ষাপট প্রায় চার বছর আগের। সেই সময়ের এক সহকর্মীর সঙ্গে টেক্সট ম্যাসেজ বিনিময়ের ঘটনায় সম্পৃক্ত ছিলাম। সেসময় এই ব্যাপারটি নিয়ে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার ইন্টেগ্রিটি ইউনিট বিশদ তদন্ত করেছিল, আমি যেটায় পুরোপুরি ও খোলামেলাভাবেই অংশ নিয়েছিলাম।'

তিনি আরও বলেন, 'ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার তদন্ত ও ক্রিকেট তাসমানিয়ার মানব সম্পদ বিভাগের তদন্তে প্রমাণিত হয়েছিল যে, ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার আচরণবিধির কোনো ধারা ভাঙিনি আমি। যদিও আমাকে নির্দোষ রায় দেওয়া হয়েছিল, তার পরও সেসময় ওই ঘটনায় গভীর অনুশোচনা করেছিলাম আমি, এখনও অনুতপ্ত। সেসময় স্ত্রী ও পরিবারের সঙ্গে কথা বলেছিলাম এবং ওদের ক্ষমা ও সমর্থনের জন্য দারুণ কৃতজ্ঞ আমি। ভেবেছিলাম, এই ঘটনা আমাদের জীবনে অতীত হয়ে গেছে এবং দলেই পুরোপুরি মনোযোগ দিতে পারব। গত তিন-চার বছর ধরে যেটি করেই আসছি।'

২০১৮ সালের বল বিকৃতির ঘটনায় জড়িত থাকায় অস্ট্রেলিয়ার নেতৃত্ব হারান স্টিভ স্মিথ। সহ-অধিনায়ক ডেভিড ওয়ার্নারও নিষেধাজ্ঞার সাজা ভোগ করেন স্মিথের সাথে। অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটের সেই দুরাবস্থায় টেস্ট অধিনায়কত্ব পান পেইন।

সর্বশেষ

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

শুরুতে দুই-তিন উইকেট হারালে ম্যাচে ফেরা কঠিন: মুমিনুল

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

সাকিবের বায়োপিক বানাতে আগ্রহী সৃজিত

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

দুই বছরের চুক্তিতে বাংলাদেশের স্পিন বোলিং কোচ হেরাথ

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

বাংলাদেশের নিউজিল্যান্ড সফরের দলে ফজলে রাব্বি

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

৪ বছর পর বিগব্যাশে রাসেল

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

চার হাজার রান ও ২০০ উইকেটের ক্লাবে সবচেয়ে দ্রুত সাকিব

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

মধ্যরাতে নিউজিল্যান্ড যাচ্ছে বাংলাদেশ দল

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

আইপিএল নিলামে দল পাবেন, শতভাগ নিশ্চিত ব্রাভো

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

নিলামে তোলা হচ্ছে ব্র্যাডম্যানের ঐতিহাসিক ব্যাট

৮ ডিসেম্বর, বুধবার, ২০২১

গ্যাবায় কামিন্সের পাঁচ উইকেটের পর বৃষ্টির হানা

আর্কাইভ

বিজ্ঞাপন