Connect with us

ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া

স্মিথের কাঁধেই নেতৃত্বভার দেখতে চান খাজা


প্রকাশ

:


আপডেট

:

ছবি : সংগৃহীত

|| ডেস্ক রিপোর্ট ||

টেস্ট ক্রিকেটে সময়টা ভালো যাচ্ছেনা অস্ট্রেলিয়ার। ক্রিকেটের অন্যতম শক্তিশালী এই দলটি সম্প্রতি ঘরের মাঠে নাকানিচুবানি খেয়েছে ইনজুরি জর্জরিত ভারতের কাছে। দলের এমন পরাজয়ের পর প্রশ্ন উঠেছে টেস্ট দলের অধিনায়কত্ব নিয়ে। স্টিভ স্মিথ নিষেধাজ্ঞায় পরায় টিম পেইনকে টেস্ট দলের নেতৃত্বভার দেয় দেশটির ক্রিকেট বোর্ড। নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে স্মিথ দলে ফেরায় এমন বাজে সময়ে পুনরায় তাঁকে নেতৃত্বে দেখতে চান কেউ কেউ। এদের মধ্যে অন্যতম অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যান উসমান খাজা।

২০১৫ সালে মাইকেল ক্লার্কের অবসরের পর দলের নেতৃত্ব ওঠে স্টিভ স্মিথের কাঁধে। এরপর তাঁর অধিনায়কত্বে টেস্ট র‍্যাংকিংয়ের শীর্ষ অবস্থানটা বেশ দাপটের সঙ্গে ধরে রাখে অস্ট্রেলিয়া। তবে ২০১৮ সালে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে কেপ টাউনে বল টেম্পারিং করে দুই বছরের নিষেধাজ্ঞায় পরতে হয় অজি অধিনায়ককে।

নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে ক্রিকেটে ফেরার এক বছর পূর্ণ হয়েছে স্মিথের। তবে এক বছর পার হলেও দলের নেতৃত্ব ফিরে পাননি এই তারকা ব্যাটসম্যান। টেস্টে টিম পেইন এবং ওয়ানডে আর টি-টোয়েন্টিতে অ্যারন ফিঞ্চের অধিনায়কত্বে থাকা অস্ট্রেলিয়া দলের নেতৃত্বে স্মিথকে বিবেচনা করা হবে কিনা তা নিয়েও মুখ খুলতে রাজি নয় ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ)।

সম্প্রতি ভারতের বিপক্ষে ঘরের মাটিতে টেস্ট সিরিজ হারায় পেইনের অধিনায়কত্ব নিয়ে আবারও শুরু হয়েছে বিতর্ক। দলকে নেতৃত্ব দেয়ার পাশাপাশি এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান ব্যর্থ হয়েছেন ব্যাট হাতেও। দলের এমন বাজে সময়ে কেউ কেউ স্মিথকে পুনরায় অস্ট্রেলিয়া দলের নেতৃত্বে ফেরানোর দাবিও তুলেছে। আবার কারো মতে লাল বলের নেতৃত্বে বিবেচনা করা যেতে পারে প্যাট কামিন্স বা মার্নাশ লাবুশানেকে।

তবে অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যান উসমান খাজার মতে, টেস্ট দলের নেতৃত্বে স্মিথকেই ফেরানো উচিত। অতীত অভিজ্ঞতা থাকায় সাদা পোশাকের ক্রিকেটে স্মিথই উপযুক্ত বলে ধারণা এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যানের। শাস্তি ভোগ করে ক্রিকেটে ফেরা স্মিথ কেন অধিনায়কত্বের জন্য বিবেচনায় আসবে না সেই প্রশ্নও তুলেছেন খাজা।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে খাজা বলেন, 'যদি স্টিভ স্মিথ অস্ট্রেলিয়াকে নেতৃত্ব দিতে চায়, তাহলে আমার মনে হয় তাঁকে নেতৃত্বভার দেয়া উচিত। সে আমাদের এক নাম্বার ব্যাটসম্যান। সে এটা আগেও করেছে। নিজের ভুলের জন্য শাস্তিও পেয়েছেন। যদি সে চায় তাহলে তাঁকে অধিনায়কত্ব করতে না দেয়ার জন্য কোন কারণ নেই।'

অবশ্য সম্প্রতি স্মিথ নিজেও অস্ট্রেলিয়া দলের অধিনায়কত্ব করার প্রতি নিজের ইচ্ছের কথা জানিয়েছেন। অস্ট্রেলিয়ান কিছু গণমাধ্যমকে এই ক্রিকেটার জানান, অধিনায়কত্ব করার ব্যাপারটা তাঁর রাডারে ছিলনা এবং অধিনায়কত্বের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেয়ার ক্ষমতাও তাঁর হাতে নেই। তাঁর এমন মন্তব্যের প্রেক্ষাপটেই স্মিথকে অধিনায়কত্বে ফেরানোর ব্যাপারে দাবি তুলেছেন ২০১৯ সালে সর্বশেষ অস্ট্রেলিয়ার হয়ে টেস্ট খেলা খাজা।

সর্বশেষ

১৮ এপ্রিল, রবিবার, ২০২১

জিম্বাবুয়ে দলে ফিরেছেন টেইলর-আরভাইন

১৮ এপ্রিল, রবিবার, ২০২১

বোল্টের চোখে ডেথ ওভারে বুমরাহই সেরা

১৮ এপ্রিল, রবিবার, ২০২১

তৃতীয় ম্যাচেও জয় শূন্য হায়দরাবাদ

১৭ এপ্রিল, শনিবার, ২০২১

মুস্তাফিজ যেন বাঁহাতি মুরালিধরন

১৭ এপ্রিল, শনিবার, ২০২১

ধৈর্য ধরতে বললেন শান্ত

১৭ এপ্রিল, শনিবার, ২০২১

প্রস্তুতি ম্যাচে তামিম-শান্তদের ব্যাটিংয়ে সন্তুষ্ট নান্নু

১৭ এপ্রিল, শনিবার, ২০২১

বিশ্বকাপ খেলতে ভারতে যেতে বাধা নেই পাকিস্তানের

১৭ এপ্রিল, শনিবার, ২০২১

সঠিক পথেই আছে পকিস্তানের বিশ্বকাপ প্রস্তুতি

১৭ এপ্রিল, শনিবার, ২০২১

৩ বিদেশি মন্ত্রে হাঁটো, মুম্বাইকে আকাশ চোপড়া

১৭ এপ্রিল, শনিবার, ২০২১

প্রস্তুতি ম্যাচের প্রথম দিনে ব্যাটসম্যানদের দাপট

আর্কাইভ

বিজ্ঞাপন